English | Bangla
কার্যক্রম
সময় দেশের মানুষ সংক্রামক রোগে আক্রান্ত হয়ে অসুস্থ হতো, কিছু ওষুধ সেবন করালেই তা সেরে যেতো। কিন্তু এখন সংক্রামক নয়, অসংক্রামক রোগেই আক্রান্ত হচ্ছে মানুষ। দীর্ঘজীবন চিকিৎসা দেয়ার পরও তা থেকে রক্ষা পাওয়া যাচ্ছে না। বরং এই অসংক্রামক রোগে আক্রান্ত হয়েই বহু মানুষ মারা যাচ্ছে। দীর্ঘ পরিকল্পনা মোতাবেক স্বাস্থ্য খাতকে এগিয়ে না নেয়ায় এমন পরিস্থিতি হচ্ছে। ১লা ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ অনলাইন নিউজপোর্টাল বাংলামেইল২৪ডটকম ও ওয়ার্ক ফর এ বেটার বাংলাদেশের (ডাব্লিউবিবি ট্রাস্ট) উদ্যোগে আয়োজিত ‘তামাক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ ও হেলথ প্রমোশন’ শীর্ষক এক ...
ও তামাকজাত দ্রব্যের ব্যবহারে ক্যান্সার, হৃদরোগ, স্ট্রোক, হাঁপানি, ডায়বেটিসহ নানাবিধ প্রাণঘাতী রোগের সৃষ্টি হয়। তামাকজনিত ভয়াবহতা কমিয়ে আনতে সরকার তামাক নিয়ন্ত্রণ আইন পাস করেছে। আইন বাস্তবায়নসহ তামাক নিয়ন্ত্রণ কার্যক্রমে গতি আনতে সরকারি ও বেসরকারি সংস্থাগুলোকে যৌথভাবে কাজ করতে হবে। পাশাপাশি তামাকের মত ক্ষতিকর কোমল পানীয়, মোড়কজাত কেমিকেল জুস, এনার্জি ড্রিংক্স, জাঙ্কফুড (চিপস ও ফ্রোজেন খাবার ইত্যাদি) ফাস্টফুড, পরিবেশ দূষণকারী প্লাস্টিকের বোতলজাত পানির ব্যবহার নিয়ন্ত্রণে এসব ক্ষতিকর পণ্যের উপর স্বাস্থ্যকর আরোপ জরুরি। এনজিও বিষয়ক ব্যুরো এবং ওয়ার্ক ফর এ বেটার বাংলাদেশ (ডাব্লিউবিবি) ...
৫ নভেম্বর ২০১৫ তামাক নিয়ন্ত্রণ, রোগ প্রতিরোধ ও স্বাস্থ্য সুরক্ষায় তামাকজাত দ্রব্য হতে ১% স্বাস্থ্য উন্নয়ন করের অর্থে হেরথ প্রমোশন ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠার উদ্যোগ গ্রহণের অনরোধ জানিয়ে মহিল ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী  এমপি মেহের আফরোজ চুমকি এর সাথে সাক্ষাৎ করেন ডাব্লিউবিবি ট্রাস্ট এর ডেপুটি প্রোগ্রাম ম্যানেজার নাজনীন কবির, প্রোগ্রাম ম্যানেজার সৈয়দা অনন্যা রহমান, প্রজেক্ট অফিসার শারমিন আক্তার রিনি। ...
খাদ্যাভাস, অপর্যাপ্ত শারীরিক পরিশ্রম, মাদক সেবন এবং ধূমপান ও তামাকজাত দ্রব্য ব্যবহারের কারনে অসংক্রামক রোগ ব্যাপকভাবে বাড়ছে। এ সকল রোগ প্রতিকারের চেয়ে প্রতিরোধের দিকে অধিক হারে গুরুত্ব দেওয়া প্রয়োজন। রোগ প্রতিরোধে সমন্বিত নীতি, পরিকল্পনা এবং উদ্যোগ এর বিকল্প নেই। রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থাকে জোরদার করতে সরকারীভাবে হেলথ প্রমোশন ফাউন্ডেশন গঠণ করা জরুরি । ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৫, সোমবার, সকাল ১১:০০ টায়, জাতীয় সংসদের আইপিডি সম্মেলন কে ডাব্লিউবিবি ট্রাস্ট এবং প্রোটেক্ট জার্নালিস্ট এর যৌথ উদ্যোগে মতবিনিময় সভায় বক্তারা এ মতপোষণ করেন। ...
২৯ আগষ্ট, ২০১৫ সন্ধ্যায় রোগ-প্রতিরোধে হেলথ প্রমোশন ফাউন্ডেশন গঠন এবং এর প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে জনসচেতনতা সৃষ্টির আহ্বান জানিয়ে সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মোহাম্মদ এরশাদের সাথে "বাংলাদেশ তামাক বিরোধী জোটের" প্রতিনিধিদের সাক্ষাৎ করেন। তামাকজাত পণ্যের উপর কর হিসেবে সারচার্জ থেকে প্রাপ্ত অর্থের সদ্বব্যবহারের জন্য হেলথ প্রমোশন ফাউন্ডেশন গঠন জরুরি। হেলথ প্রমোশন ফাউন্ডেশনের কাজ হবে স্বতন্ত্র সংস্থার অধীনে স্বাধীনভাবে সিদ্ধান্ত গ্রহণ, পরিকল্পনা প্রণয়ন, তদারকি ও মূল্যায়নের ভিত্তিতে হুসেইন মোহাম্মদ এরশাদের সাথে সাক্ষাতে এই আহ্বান জানায় বাংলাদেশ তামাক বিরোধী জোটের প্রতিনিধিরা। ...